দেশের মোট রাজস্বের ৯৫ শতাংশই জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) আদায় করছে বলে জানিয়েছেন প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান নজিবুর রহমান।

 

তিনি বলেছেন,  ‘বাংলাদেশ বদলে যাচ্ছে। আমরা এখন আর বিদেশিদের দিকে তাকাচ্ছি না। সরকারের রাজস্ব বিভাগ বেশ সক্রিয়। দেশের মোট রাজস্বের ৯৫ শতাংশই আদায় করে এনবিআর। যা মোট বাজেটের ৬০ শতাংশ।’

বুধবার রাজধানীর বেইলী রোডের অফিসার্স ক্লাবে ‘পে-রোল ট্যাক্স ও করনেট সম্প্রসারণ’ বিষয়ক সেমিনারে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেন।

নজিবুর রহমান বলেন, ‘জাতির জনকের হাতে গড়া প্রতিষ্ঠান এনবিআর রাজস্ব আহরণে ইতিবাচক ভূমিকা পালন করছে। ১৯৭২ সালে ১৬৬ কোটি টাকা আহরণ করে যাত্রা শুরুর পর ক্রমান্বয়ে ধাপে ধাপে রাজস্ব আদায় বৃদ্ধি পেয়েছে। বর্তমানে (২০১৬-১৭) অর্থবছরের জন্য ২ লাখ ৩ হাজার ১৫২ কোটি টাকার রাজস্ব আহরণের জন্য কাজ করছি।’

কর্মকর্তাদের উদ্দেশে এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, রাজস্ব আদায়ের দায়িত্ব পাওয়া ভাগ্যের ব্যাপার। এটা আল্লাহর রহমতের বিষয়। আসুন সবাই সৎভাবে রাজস্ব আদায়ের দায়িত্ব পালন করে সবুজ মানুষ হই।

তিনি বলেন, পে-রোল ট্যাক্স চালু করায় সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা করনেটের আওতায় আসায় চলতি অর্থবছরে প্রায় আড়াই লাখ হতে পাঁট লাখ নতুন করদাতা সৃষ্টির পথ তৈরি হলো। যা দেশের অর্থনীতির জন্য গুরুত্বপূর্ণ মাইলফলক।

সেমিনারে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশের কন্ট্রোলার অ্যান্ড অডিটর জেনারেল মাসুদ আহমেদ বলেন, ‘আয়কর একটি প্রোগ্রেসিভ কর ব্যবস্থা। এ বিষয়ে আইনের বাধ্যবাধকতা রয়েছে। কিন্তু বাংলাদেশে করযোগ্য আয় থাকা সত্ত্বেও অনেক ব্যক্তি আয়কর দেন না। এ পরিস্থিতির উন্নতির জন্য আমাদের রাজস্ব-বান্ধব সংস্কৃতি গড়ে তোলা প্রয়োজন। এ জন্য এনবিআরকে অনেক দক্ষ হতে হবে। শুধু ইমোশনাল হয়ে বল প্রয়োগ করা যাবে না। করদাতা ও করগ্রহীতা উভয়পক্ষের কথা চিন্তা করতে হবে।’

তিনি বলেন, সরকারি ও বেসরকারি চাকরীজীবীরা দেশের শিক্ষিত ও সচেতন নাগরিকদের গুরুত্বপূর্ণ অংশ। যথাযথভাবে পে-রোল ট্যাক্স পরিশোধ এবং করের আওতা সম্প্রসারণে আজকের সেমিনার গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে। 

সেমিনারে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত এমপি প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে সরকারের বিভিন্ন মন্ত্রণালয় ও বিভাগের সচিবরা, ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা, দপ্তর-সংস্থার প্রধানরা, পেশাজীবী, কর আইনজীবী, সুশীল ও ব্যবসায়ী সমাজের নেতারা উপস্থিতি ছিলেন।

 

বাংলাবিজনিউজ/আনোয়ার